A PHP Error was encountered

Severity: Notice

Message: Only variable references should be returned by reference

Filename: core/Common.php

Line Number: 257

সংসদে প্রতিমন্ত্রীর সোনার নৌকা | Probe News

gold boat.jpgপ্রোব নিউজ, ঢাকা: সরকারের একজন প্রতিমন্ত্রীর সোনার নৌকা উপহার নেওয়া এবং তা রাষ্ট্রীয় তোষাখানায় জমা না দিয়ে এতিমখানায় জমা দেওয়া নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন জাতীয় পার্টির সাংসদ এ কে এম মাইদুল ইসলাম। সোমবার জাতীয় সংসদের টেবিলে উত্থাপিত প্রশ্নোত্তরপর্বে আইনমন্ত্রীর আনিসুল হকের কাছে তিনি এ প্রশ্ন করেন।

তার আগে বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের অধিবেশন শুরু হয়।
নির্ধারিত প্রশ্নে মাইদুল ইসলাম বলেন, ‘কিছুদিন আগে একজন প্রতিমন্ত্রী একটি সোনার নৌকা উপহার নিয়েছেন বলে পত্র-পত্রিকায় প্রকাশ হয়েছে। পরে তিনি বিব্রতকর অবস্থায় পড়ে সোনার নৌকাটি বিক্রি করে সেই টাকা এতিমখানায় দান করেন। কিন্তু আমার জানামতে আইন আছে, ৫০০ টাকার দামের বেশি মূল্যমানের জিনিস উপহার নিলে তা বঙ্গভবনের তোষাখানায় জমা দিতে হয়। এ আইনটি বর্তমানে চালু আছে কি না?’
জবাবে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, স্পিকার, মন্ত্রী, ডেপুটি স্পিকার, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রী, সংসদ সদস্য এবং সরকারি কর্মচারী কর্তৃক পাওয়া উপহার রাষ্ট্রীয় তোষাখানায় জমা দেওয়া-সংক্রান্ত ‘তোষাখানা (মেইনটেনেন্স অ্যান্ড অ্যাডমিনিসস্ট্রেশন) রুলস ১৯৭৪ বর্তমানে কার্যকর আছে।
মন্ত্রী আরও বলেন, বিধি অনুযায়ী স্পিকার, মন্ত্রী, ডেপুটি স্পিকার, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রীদের পাওয়া উপহারের মূল্য তোষাখানায় মূল্যায়ন কমিটি কর্তৃক ৩০ হাজার টাকার বেশি মূল্যমানের বিবেচিত হলে ওই উপহার রাষ্ট্রীয় তোষাখানায় জমা দিতে হয়।
গত ২৪শে জানুয়ারি রাজশাহীতে এক সংবর্ধনায় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমকে সোনার নৌকা উপহার দেন বাঘা পৌরসভার মেয়র আক্কাস আলী। এ নিয়ে পত্র-পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ হলে শাহরিয়ার আলম ওই সোনার নৌকা বিক্রি করে টাকা একটি এতিমখানায় দান করেন।
প্রোব/ হার /জাতীয়/২৪.০৩.২০১৪

২৪ মার্চ ২০১৪ | জাতীয় | ২১:২৯:১২ | ১০:০৭:৫১

জাতীয়

 >  Last ›