A PHP Error was encountered

Severity: Notice

Message: Only variable references should be returned by reference

Filename: core/Common.php

Line Number: 257

প্রাণ ফিরেছে ধানমন্ডি খেলার মাঠে | Probe News

dhanmondimath132.jpg

প্রাণ ফিরেছে ধানমন্ডি খেলার মাঠে

প্রোবনিউজ, ঢাকা : গ্রীষ্মের তপ্ত দুপুরে ধানমন্ডি মাঠে খেলছে বেশ কিছু তরুণ। প্রচন্ড রোদ পড়লেও চোখে মুখে ক্লান্তির ছাপ নেই তাদের। আপন মনে খেলে যাচ্ছে তারা। সবাই যেন ফিরে পেয়েছে উত্তাল তারুণ্য, কৈশোরের স্বভাবসুলভ চাঞ্চল্য। কলাবাগান এলাকার নবম শ্রেণীর ছাত্র তানভীর জানালেন, ‘দুই বছর ধানমন্ডি মাঠে প্রবেশ করতে পারিনি। মাঠের চারপাশে ঘুরে বাড়ি ফিরে যেতাম। বাড়ির কাছে মাঠ না থাকায় মাসে একবার খেলার সুযোগ পেতাম। তাও আবার সময়ের অভাবে অনেক সময় হয়ে ওঠতো না। ধানমন্ডি মাঠ খুলে দেয়ায় খুব ভালো লাগছে। এখন আর দূরে গিয়ে খেলতে হবে না।’
রাজধানীর বসির উদ্দিন রোডের ২২ বন্ধু মিলে নিউ মডেল কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্র সৌরভ গড়েছিলেন ফুটবল-ক্রিকেট ক্লাব (এফসি ক্লাব)। কিন্তু মাঠ দূরে হওয়ায় খেলোয়াড় কমতে শুরু করেছে বলে মত তার। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মহসিন হল, গ্রীণ রোড স্টাফ কোয়ার্টার মাঠ, জিয়া উদ্যানসহ দূরের মাঠে খেলতে যেতে হতো তাদের। বন্ধুরা যেতে চাইতো না। মাঝে মধ্যে আবাহনী মাঠে খেলতে গেলেও তাদের তাড়িয়ে দেয়া হয়েছে। বাড়ির কাছে ধানমন্ডি খেলার মাঠেও প্রবেশ করতে দেয়া হতো না। এতে ক্লাবটি টিকিয়ে রাখা মুশকিল হয়ে পড়ে। সৌরভ জানালেন, মাঠটি খুলে দেয়ায় আবারো বন্ধুরা মিলে খেলার সুযোগ পেয়েছি। সবুজ ঘাসে খেলতে পেরে খুব আনন্দ লাগছে।
ক্রিসেন্ট রোডের দশম শ্রেণীর ছাত্র লাবিব আব্দুল্লাহ জানালেন, ‘আমিও মাঠ রক্ষা আন্দোলনের সঙ্গে ছিলাম। দুই বছর খুব কষ্টে কেটেছে। মাসে এক-দুই দিন খেলার সুযোগ পেতাম। তারপরও দূরের মাঠে আব্বু-আম্মু খেলতে যেতে দিত না। মাঠটি খুলে দেয়ায় খুব ভালো লাগছে। এখন থেকে নিয়মিত সবাই খেলতে আসবো।’
গ্রীণরোডের সুরভি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র ইব্রাহিম রাউফিন স্কুল ছুটির পর খেলতে এসেছে। বাবার সঙ্গে ঘুরতে এসেছে দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্র সাফিনুল ইসলাম অর্প। সেন্ট্রাল রোডের বাসিন্দা অর্পর বাবা শহীদুল ইসলাম জানালেন, ‘টিভিতে মাঠ খুলে দিয়েছে দেখে অর্পকে নিয়ে প্রথম মাঠে প্রবেশ করলাম। আমিও ছোট বেলায় এই মাঠে খেলেছি। খুব ভালো লাগছে বাচ্চাকে নিয়ে এই মাঠে খেলতে পারছি।’
dhanmondimath321.jpgনাগরিক আন্দোলনের মুখে বুধবার দুপুরে ধানমন্ডি খেলার মাঠ সর্বসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করে দিয়েছে ঢাকা সিটি কর্পোরেশন (ডিসিসি) দক্ষিণ। এরপরও থেমে নেই মাঠের ভেতর ছয়তলা ভবন নির্মাণের কাজ। আর মাঠের ভেতর অবৈধ স্থাপনা অপসারণের কোন অগ্রগতি নেই। একই সাথে মাঠের ভেতর খেলছে ক্লাবের পেশাদারি খেলোয়াড় ও এলাকাবাসী। বক্স দিয়ে সীমানা তৈরি করা হয়েছে। পেশাদারি খেলোয়াড়দের দ্রুতগতির শট মাঠে খেলতে আসা ছেলেদের গায়ে লাগলে খেলার সুস্থ পরিবেশ নিয়ে ভাবনায় পড়তে হচ্ছে এলাকাবাসীর।
দুপুর গড়িয়ে বিকেল হতে থাকলে স্থানীয় তরুণেরা ফুটবল, বুট, গোলবার, ক্রিকেট বল,স্ট্যাম্প হাতে দলে দলে ধানমন্ডি মাঠে প্রবেশ করতে থাকে। আবারো প্রাণের এই মাঠটিতে খেলতে পেরে সবার মনে লেগেছে খুশির রঙ। দেখলে মনে হয়, পুরাতন ঐতিহ্যে ফিরে পেতে যাচ্ছে ধানমন্ডি খেলার মাঠ।


প্রোব/এহ/মুআ/খেলা ২৬.০৪.২০১৪

২৬ এপ্রিল ২০১৪ | খেলা | ২১:২৪:৪৩ | ১৫:১৯:৪৯