A PHP Error was encountered

Severity: Notice

Message: Only variable references should be returned by reference

Filename: core/Common.php

Line Number: 257

নিখোঁজদের উদ্ধারে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর দায়িত্বশীল ভূমিকা প্রয়োজন: সুলতানা কামাল | Probe News

Sultana Kamal.jpgপ্রোবনিউজ, ঢাকা: আইন ও সালিস কেন্দ্রর নির্বাহী পরিচালক সুলতানা কামাল বলেছেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী কোনো দলের নয়, কোনো পক্ষেরও নয়। দলমত-নির্বিশেষে যাঁরাই নিখোঁজ হন না কেন, তাঁদের খুঁজে দেওয়ার দায়িত্ব আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর।
বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে সুলতানা কামাল এ কথা বলেন। সাজিদুল ইসলাম সুমন রাজধানীর তেজগাঁও থানার শাহীনবাগের বাসিন্দা ও ৩৮ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক। নিখোঁজ ব্যক্তিদের পরিবার সংবাদ সম্মেলনটির আয়োজন করে।

তিনি বলেন, বিএনপি নেতা সাজিদুল ইসলাম সুমনসহ দেশে বিভিন্ন সময়ে নিখোঁজ ব্যক্তিদের সন্ধান দিতে সরকার ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর দায়িত্বশীল ভূমিকা প্রয়োজন।
আইন ও সালিশ কেন্দ্রের নির্বাহী পরিচালক বলেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী যদি তাদের দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ হয়, তাহলে এ জন্য তাদের জবাবদিহি করতে হবে। তিনি বলেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দায়িত্ব পালন না করে পার পেয়ে যায় বলে দায়িত্বের প্রতি তারা শ্রদ্ধাশীলও হয় না।
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত আইনজীবী শাহদীন মালিক বলেন, ‘সংবিধান ও আইনে বলা আছে, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী যদি কাউকে গ্রেপ্তার করে, তবে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তাকে আদালতে সোপর্দ করতে হবে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি আমার অনুরোধ, তারা যেন আইনের প্রতি ন্যূনতম শ্রদ্ধা রাখে এবং তা পালন করে।’
এই আইনজীবী আরও বলেন, যদি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পরিচয়ে কেউ কাউকে তুলে নিয়ে যায়, তাহলে তাদের খুঁজে বের করা এবং কারা তুলে নিয়ে গেল, তাদেরও আইনের মুখোমুখি করাই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর দায়িত্ব।
গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা জাফরউল্লাহ চৌধুরী বলেন, এ ধরনের নিখোঁজ হওয়ার যে ঘটনা, এগুলোকে প্রতিহত করতে জনগণকেও প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। বিচারপতিদের এ ক্ষেত্রে সাহসী ভূমিকা পালন করতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে নিখোঁজ ব্যক্তিদের অবিলম্বে ফিরিয়ে দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন তাঁদের পরিবারের সদস্যরা।
সংবাদ সম্মেলন শেষে প্রেসক্লাবের সামনে এক মানববন্ধনেও নিখোঁজ ব্যক্তিদের পরিবারের সদস্যরা একই দাবি জানান।
গত বছরের ৪ ডিসেম্বর পৃথক সময়ে প্রশাসনের লোক পরিচয় দিয়ে সাজিদুলসহ আটজনকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়। বাকি সাতজন হলেন শাহীনবাগের বাসিন্দা কাওসার আহমেদ, পূর্ব নাখালপাড়ার আবদুল কাদের ভূঁইয়া মাসুম, পশ্চিম নাখালপাড়ার মাজহারুল ইসলাম রাসেল, মুগদা এলাকার আসাদুজ্জামান, উত্তর বাড্ডার আল আমীন, শাহীনবাগের এ এম আদনান চৌধুরী ও সাজিদুলের খালাতো ভাই বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার বাসিন্দা জাহিদুল করিম তানভীর।
প্রোব/খোআ/জাতীয় ২৪.০৪.২০১৪

২৪ এপ্রিল ২০১৪ | জাতীয় | ১৩:৩২:৩৮ | ১১:০২:৫৫

জাতীয়

 >  Last ›