A PHP Error was encountered

Severity: Notice

Message: Only variable references should be returned by reference

Filename: core/Common.php

Line Number: 257

আন্দোলনে রক্ষা পেল জিন্দাপার্ক | Probe News

Jinda-Park.jpg

প্রোব নিউজ, ঢাকা: এলাকাবাসী, পরিবেশবাদি সংগঠনসহ নানা মহলের বাধার মুখে অবশেষে রক্ষা পেল নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের জিন্দাপার্ক। উচ্ছেদ অভিযান ছাড়া সমঝোতার মাধ্যমে মাত্র চারটি সাইনবোর্ড লাগিয়েছে রাজউক। তবে পার্কটির পরিচালনার দায়িত্বে থাকবে এর প্রতিষ্ঠাতা সংগঠন অগ্রপথিক পল্লী সমিতি।
বৃহস্পতিবার সকালে রাজউক প্রায় পাঁচশতাধিক পুলিশসহ পার্ক উচ্ছেদে গেলে শুরু হয় উত্তেজনা। এলাকাবাসি, পরিবেশবাদি সংগঠনসহ বিশিষ্টজনরা পার্ক রক্ষায় অবস্থান নেয় রাস্তায়। বিকেল চারটা পর্যন্ত রাজউকের এ অভিযান নিয়ে চলে টানটান উত্তেজনা। পরে এই সমঝোতা হয়।
সমঝোতার অংশ হিসেবে পার্কের সামনে একটি সাইনবোর্ড লাগানো হয়। যেখানে লেখা রয়েছে ‘রাজউকের অধিগ্রহণকৃত সম্পত্তি। পরিচালনায় অগ্রপথিক সমবায় সমিতি’। তবে এর আগে পার্কটির সামনে রাজউকের লাগানো একটি সাইন বোর্ড উপড়ে ফেলেন সমিতির সদস্য ও গ্রামের বিক্ষুব্ধ বাসিন্দারা। যেখানে লেখা ছিল, ‘রাজউকের অধিগ্রহণকৃত সম্পত্তি। সর্বসাধারণের প্রবেশ নিষেধ’।
এলাকাবাসী ও পুলিশ জানায়, সকালে রাজউক উচ্ছেদ অভিযানে গেলে এর বিরুদ্ধে অগ্রপথিক পল্লী উন্নয়ন সমিতির নেতৃত্বে বিক্ষোভ শুরু হয়। বিক্ষোভকারীরা পার্কের সড়কের সামনে বসে উচ্ছেদ অভিযানের বিরুদ্ধে স্লোগান দিতে থাকেন। এ সময় তাঁদের সঙ্গে যোগ দেন পার্কের ভেতরে থাকা স্কুলের শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও অভিভাবকেরা।
পার্ক রক্ষায় এলাকাবাসীর সঙ্গে যোগ দেন পরিবেশ আন্দোলনের (পবা) চেয়ারম্যান আবু নাসের খান, ঐক্য ন্যাপের সভাপতি পঙ্কজ ভট্টাচার্য, পরিবেশ আন্দোলনের নেতা এম এইচ পল্টন, লানিক মোরন, অধ্যাপক নুর মোহাম্মদ, মিহির বিশ্বাসের নেতৃত্বে অগ্রপথিক সমবায় সমিতির সদস্যরা। ওই সময় স্থানীয় এলাকাবাসীর অনেকেই নিজেদের শরীওে পেট্রল ঢেলে আত্মাহুতির জন্য প্রস্তুত ছিল। আর মুখে ছিল ‘জান দেব, তবুও পার্ক দেব না’ এই স্লোগান।
পবার চেয়ারম্যান আবু নাসের খান জানান, অন্যায়ভাবে রাজউক কর্তৃপক্ষ অগ্রপথিক সমিতির গড়ে তোলা জিন্দাপার্কটি দখলের পাঁয়তারা করে আসছে। এজন্য তারা বিপুল পরিমাণ পুলিশ সদস্যদের মাধ্যমে পার্কটি দখলের চেষ্টা করছে। এলাকার মানুষ তিলে তিলে পার্কটি গড়ে তুলেছে।

 

রাজউকের পরিচালক সদস্য (উন্নয়ন) নাঈম আহমেদ বলেন, অগ্রপথিক পল্লী সমিতির সঙ্গে আপাতত একটি সমঝোতা হয়েছে। সমঝোতা অনুযায়ী পার্কটি রাজউকের অধিগ্রহণকৃত সম্পত্তি। তবে পার্কটির পরিচালনার দায়িত্বে থাকবে অগ্রপথিক পল্লী সমিতি। তবে বিষয়টির চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে রাজউকের নীতিনির্ধারকেরা।
পার্কেও প্রতিষ্ঠাতা তবারক হোসেন জানান, ‘হাইকোর্টে মামলা চললেও অবৈধভাবে রাজউক উচ্ছেদ অভিযান চালানোর চেষ্টা করেছিল। তবে আমাদের আন্দোলনের মুখে আজ রাজউকের কর্মকর্তারা আমাদেরকে অবৈধ দখলদার বলে উচ্ছেদ করেনি। তারা আমাদের স্বীকৃতি দিয়ে বলেছে, রাজউক পার্কটির জমির মালিক হলেও আমরা পার্কটির প্রতিষ্ঠাতা।’
জানা গেছে, জিন্দাপার্কের যাত্রা শুরু ১৯৮১ সালে। অগ্রপথিক পল্লী সমিতির প্রায় পাঁচ হাজার সদস্য ১০০ বিঘা জমির ওপর পার্কটি গড়ে তোলেন। এর ভেতরে পাঁচটি জলাশয়, ৫০০ প্রজাতির বনজ, ফলদ ও ঔষধিসহ কয়েক লাখ গাছ রয়েছে। আছে স্কুল, মসজিদ, পাঠাগার, কটেজ ও অফিসসহ বেশ কয়েকটি স্থাপনাও।
প্রোব/জাতীয়/শর/ ৩ এপ্রিল ২০১৪

 

৩ এপ্রিল ২০১৪ | জাতীয় | ১৪:৫১:৩৯ | ১৩:১১:৪১

জাতীয়

 >  Last ›