A PHP Error was encountered

Severity: Notice

Message: Only variable references should be returned by reference

Filename: core/Common.php

Line Number: 257

ফাস্টরাক্সের আতশবাজির খেলা | Probe News

ফাস্টরাক্সের আতশবাজির খেলা


article-2665383-1F030E5400000578-828_964x641


প্রোবনিউজ, ডেস্ক:
ধরুন কালো নিকষ রাতে অন্ধকার আকাশের দিকে তাকিয়ে আছেন, হটাৎ দেখলেন আকাশ থেকে কিছু মানুষ নেমে আসছে, আর তাদের গা থেকে রাতের আকাশকে আলোকিত করছে আতশবাজির ফুলকি। খুব কি অবাক হবেন? এমন কান্ডই ঘটিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ওহিও শহরের প্রফেশনাল স্কাই ড্রাইভারের দল ফাস্টরাক্স।

এই স্কাই ড্রাইভারের দল আগেও বহু কান্ড ঘটিয়ে দর্শকের মনে জায়গা করে নিলেও তাদের সর্বশেষ উদ্যোগ ছিল, পায়ে আতশবাজি বেঁধে প্লেন থেকে মাটিতে ঝাঁপ দেয়া। এতে অংশ নেয় ফাস্টরাক্সের চার সদস্য। তবে তাদের এই অভিযানে ঝুঁকিও কম ছিল না।

সবচেয়ে বড় ঝুঁকি ছিল রাতের অন্ধকার আকাশে ঝাঁপ দেয়া, আর তাদের নিজেদের মত করে তৈরি প্যারাসুট। এ সময় তাদের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় প্রায় ১২০মিটার। প্রায় ১৩,৫০০ফিট উচ্চতায় থাকতে দুই পায়ে বাধা ছয়টি আতশবাজির বোতামে চাপ দিয়ে শুরু হয় খেলা। এই আতশবাজির বোতাম যুক্ত ছিল তাদের বুকের সাথে। ৫০০০ ফিট নীচে নেমে তারা খুলে দেয় প্যারাসুট। একাজে তাদের যথেষ্ঠ সতর্কতা অবলম্বন করতে হয়েছে। কারণ, ওই অবস্থায় আতশবাজির তাপমাত্রা ছিলও প্রায় ৩০০০ডিগ্রি ফারেনহাইট, যা প্রায় ১০,০০০০ মোমবাতির তাপমাত্রার সমান। আর একটু অসতর্ক হলেই আগুন ধরে যেতো প্যারাসুটে!!

সফল এই অভিযানের পর উচ্ছ্বসিত মন্তব্য করেন টিমের প্রধান জন হার্টের, ‘আমরা যখন উপর থেকে আতশবাজির আলো ছড়াতে ছড়াতে নামছিলাম, তখন আমাদেরকে উল্কার মত দেখাছিল।

এই অভিযানের ফটোগ্রাফার হিসেবে ফাস্টরাক্স টিমের সাথে ছিল নরমান কেন্ট, যিনি গডজিলা ও এনডারস গেম সিনেমায় কাজ করেছেন। তার ভাষায়, ‘আমি আগেও এরিয়াল স্টান্টের কাজ করেছি। তবে এখানে সত্যিকার বিস্ফোরক নিয়ে ঝাঁপ দেয়া হয়েছে। ফাস্টরাক্সের সাথে কাজ করার অভিজ্ঞতা সম্পূর্ণই অন্যরকম।’

আরও ছবি দেখতে ক্লিক করুন: https://www.facebook.com/media/set/?set=a.583338028449099.1073741835.518400131609556&type=1

প্রোব/অমি/লাইফস্টাইল/২৩.০৬.০১৪

 

২৩ জুন ২০১৪ | লাইফস্টাইল | ১৬:২৬:০১ | ১৩:১৪:৫০